ভারত- ৭ বছর পর বেকসুর খালাস, আদিবাসী নারী বলছেন, তিনি নির্যাতিত হয়েছিলেন –  

“I was never involved in any Maoist activity… What was my fault?”

 

 

১৭ বছর বয়সী কাওাসি হিমদে, দক্ষিণ ছত্তিশগড়ের দান্তেওয়াদা জেলায় ২৩ জন পুলিশ হত্যার সাথে জড়িত  এই অভিযোগে ২০০৮  সালে তাকে গ্রেফতার করা হয়।  গ্রেফতারের সময় তিনি ছিলেন শক্ত-সামর্থ্যবান একটি অল্প বয়স্ক মেয়ে  ।

দান্তেওয়াদার একটি আদালত তার দোষ না পাওয়ায় ,  তিন দিন আগে জেল থেকে বের হয়ে ক্লান্ত কাওাসি হিমদে  বলেন . “আমি কোনো মাওবাদী কর্মকান্ডের সাথে জড়িত ছিলাম না, তবুও, আমার জীবনের সাত বছর হারিয়ে গেছে. আমি পুলিশী নির্যাতন দ্বারা সৃষ্ট অসংখ্য স্বাস্থ্য সমস্যায় ভুগছি। আমার দোষ কি ছিল ?

হিদমে ২০০৭ সালের জুলাই মাসে বস্তারের এররাবর গ্রামে ৩৫০ জন মাওবাদীর একটি দলে যুক্ত ছিলেন, যারা পুলিশ হত্যার সাথে জড়িত বলে অভিযুক্ত হন ও একই সাথে ভারতীয় পেনাল কোড আইন ৩০২, ১৪৭, ১৪৮, ১৪৯  ধারা ও অস্ত্র আইনের বিভিন্ন ধারায় অভিযুক্ত হন।

বস্তার এর আদিবাসীদের মাওবাদী মোকাবেলার নামে নানা হয়রানি ও নির্যাতন শিকার কিভাবে হয়, হিদমে তার একটি আদর্শ কেস স্টাডি । বুধবার জেল গেট থেকে হিদমেকে গ্রহণ করতে আসেন , আদিবাসী কর্মী সোনি সোরি।

 “তিনি নির্দোষ ছিল, কিন্তু এটা বুঝতে রাষ্ট্রীয় সিস্টেম  সাত বছর সময় নেন. তার ক্ষেত্রে মামলা অনেক মাস আগে সম্পন্ন করা হয়েছে, কিন্তু রায় … বিলম্বিত হয় ” – বলেন হিদমের পক্ষে আইনি লড়াই এ অংশ নেয়া অ্যাডভোকেট শালিনী গেরা ও সিনিয়র আইনজীবী  বিছেম পণ্ডী। তারা বলেন- প্রসিকিউশন দ্বারা উপস্থাপিত প্রমাণ অসার ছিল।

“মিস গেরা বলেন. -“হিদমের নামে প্রথমে এফ আই আর করা হয়নি। ঘটনার ৫ মাস পর কিছু পুলিশ হঠাৎ অভিযোগ করে যে,  মাওবাদীরা উক্ত ঘটনাস্থলে তার নাম ধরে ডেকেছিল। অথচ কোন সাক্ষী  তাকে চিহ্নিত করেনি।

হিদমে বলেন-  “আমি ২০০৮ এর জানুয়ারিতে গ্রেফতার হই, এরপর প্রথম তিন মাস আমাকে বিভিন্ন থানায় রেখে অকথ্য সব নির্যাতন করেছে। নির্যাতনের ফলে এখন আমার স্বাস্থ্য এতই খারাপ যে, আমি আর বিয়ের কথা ভাবতে পারি না।

সুত্র

https://in.newshub.org/acquitted-after-7-years-tribal-woman-says-she-tortured-14521145.html

Advertisements


Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s