তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এর্দোগানের মেয়ের হাসপাতালে চলছে আইএস জঙ্গিদের চিকিৎসা

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এর্দোগানের মেয়ে সুমেইয়ে এর্দোগান

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এর্দোগানের মেয়ে সুমেইয়ে এর্দোগান

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এর্দোগানের মেয়ের প্রতিষ্ঠিত একটি ‘গোপন’ হাসপাতালে জঙ্গি গোষ্ঠী আইএসআইএলের আহত জঙ্গিদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ খবর জানিয়েছেন হাসপাতালটির একজন নার্স।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই নার্স জানিয়েছেন, তুরস্কের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় শহর সানলিউরফায় হাসপাতালটি অবস্থিত। ওই নার্সের বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক গবেষণা ও গণমাধ্যম বিষয়ক সংস্থা গ্লোবাল রিসার্স বলেছে, তুর্কি প্রেসিডেন্টের মেয়ে সুমেইয়ে এর্দোগান হাসপাতালটি পরিচালনা করছেন।

৩৪ বছর বয়সি নার্স বলেছেন, সিরিয়ায় প্রেসিডেন্ট বাশার আসাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে গিয়ে আহত আইএসআইএল সন্ত্রাসীদেরকে অত্যন্ত যত্নের সঙ্গে এই হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়। তিনি আরো জানান, হাসপাতালটিতে মাত্র সাত মাস কাজ করেছেন তিনি। এই সময়ে “প্রায় প্রতিদিন ট্রাকে করে অসংখ্য আহত জঙ্গিকে আমাদের হাসপাতালে নিয়ে আসা হতো। সঙ্গে সঙ্গে আমরা অপারেশন রুম প্রস্তুত করে জঙ্গিদের চিকিৎসায় ডাক্তারদের সহযোগিতা করতাম।”

ওই নার্স জানান, এর্দোগানের মেয়েকে তিনি বহুবার ওই হাসপাতাল পরিদর্শন করতে দেখেছেন। তিনি বলেন, তার আলাভি মতাদর্শে বিশ্বাসী হওয়ার বিষয়টি প্রকাশ হয়ে যাওয়ার পর তাকে হাসপাতালটি থেকে বের করে দেয়া হয়। তুরস্কের পুলিশ ও গোয়েন্দা বাহিনী তাকে গ্রেফতার করতে পারে ভেবে বর্তমানে তিনি শঙ্কার মধ্যে রয়েছেন।

এর্দোগান কন্যা সুমেইয়ে এর্দোগান সম্প্রতি ইরাকের উত্তরাঞ্চলীয় মসুল শহর পরিদর্শন করেন। জঙ্গি গোষ্ঠী আইএসআইএল নিয়ন্ত্রিত শহরটি সফর শেষে তিনি জানান, জঙ্গিদের সহায়তা করতেই তিনি সেখানে গিয়েছিলেন। ২০১৪ সালের জুন মাস থেকে মসুল নিয়ন্ত্রণ করছে আইএস জঙ্গিরা।

ইরাক ও সিরিয়ায় তৎপর মানবতা বিরোধী জঙ্গি গোষ্ঠী আইএসআইএলের প্রধান পৃষ্ঠপোষক হচ্ছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট এর্দোগান। সারাবিশ্ব থেকে আসা সন্ত্রাসীরা মূলত তুরস্ক হয়ে সিরিয়া ও ইরাকে প্রবেশ করছে। ওই দুই দেশে প্রবেশের আগে জঙ্গিদেরকে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ ও অস্ত্র সরবরাহ করছে তুর্কি সরকার।

তুরস্কের সানলিরউফা প্রদেশের সুরাক শহরে, কোবানিতে আটকে থাকা বেসামরিক লোকজনের জন্য ত্রাণ সহযোগিতা নিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি নেওয়া বামপন্থীদের প্রায় ৩শ’ তরুণ একটি আলোচনা অনুষ্ঠানে ‘আমারা সংস্কৃতি কেন্দ্রে‘ সোস্যালিস্ট ইয়ুথ অ্যাসোসিয়েশন ফেডারেশনের সমাবেশে ভয়াবহ বোমা বিস্ফোরণে অন্তত ৩২ জন নিহত ও প্রায় ১০০ মানুষ আহত হওয়ার ঘটনায় তুরস্কের মাওবাদী ও বামপন্থী কুর্দিরা অভিযোগ করে আসছিল যে, তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়েপ এরদোয়ানের সরকার আইএস জঙ্গিদের মদদ দিচ্ছে এবং উক্ত সমাবেশে হামলার ঘটনার সাথে তুরস্ক সরকার জড়িত। মাওবাদীরা ওই হামলার পর থেকেই তুরস্ক রাষ্ট্রের পুলিশ বাহিনীর উপর হামলা শুরু করেছে, এরই ধারাবাহিকতায় আজ PKK-পিকেকে ২ তুর্কি পুলিশকে খতম করে।

সূত্রঃ http://bangla.irib.ir/2010-04-21-08-29-09/2010-04-21-08-29-54/item/75553-%E0%A6%8F%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A6%E0%A7%8B%E0%A6%97%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%AE%E0%A7%87%E0%A7%9F%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%B9%E0%A6%BE%E0%A6%B8%E0%A6%AA%E0%A6%BE%E0%A6%A4%E0%A6%BE%E0%A6%B2%E0%A7%87-%E0%A6%9A%E0%A6%B2%E0%A6%9B%E0%A7%87-%E0%A6%B8%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%BE%E0%A6%B8%E0%A7%80%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%9A%E0%A6%BF%E0%A6%95%E0%A6%BF%E0%A7%8E%E0%A6%B8%E0%A6%BE



Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.