মাওবাদী নেতা হিমাদ্রি সেন রায় ওরফে সোমেন

মাওবাদী নেতা হিমাদ্রি সেন রায় ওরফে সোমেন

গতকাল ভোর ৬টায়, ৬৬ বছর বয়সে মারা গেলেন সিপিআই মাওবাদীর প্রাক্তন রাজ্য সম্পাদক হিমাদ্রি সেন রায় ওরফে সোমেন। বেশ কিছুদিন ধরেই তিনি ফুসফুসের ক্যানসারে আক্রান্ত ছিলেন।  বুধবার নিউটাউনের টাটা ক্যানসার হাসপাতালে মৃত্যু হয় তাঁর।  দীর্ঘদিন জেলে থাকার পর কয়েক মাস আগে তাঁকে জেল থেকে ছাড়া হয়।

২০০১ সাল থেকে তিনি পশ্চিমবঙ্গে একটানা সাত বছর মাওবাদীদের (জনযুদ্ধ এবং পরে সিপিআই মাওবাদী মিলে) রাজ্য সম্পাদক ছিলেন।  উল্লেখ্য, তাঁর সময়ে সিঙ্গুর, নন্দীগ্রাম আন্দোলন দানা বাঁধে।  উল্লেখ্য, ২০০৮ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি সিআইডি’র গোয়েন্দারা উত্তর ২৪ পরগনার হৃদয়পুর রেল স্টেশন থেকে গ্রেপ্তার করেন এই মাওবাদী নেতাকে। তাঁর বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার পাশাপাশি অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের করেছিল সিআইডি।  কিন্তু উপযুক্ত সাক্ষ্যপ্রমাণ না থাকায় ২০১৫ সালে বারাসত আদালত তাঁকে মুক্তি দেয়।

২০১৫ সালের ৫ই ডিসেম্বর মাওবাদী নেতা সোমেনের শরীরে ক্যান্সার ধরা পড়ে। সোমেন ছিলেন উত্তর ২৪ পরগণার খড়দার সুর্যনগর থেকে আসা, যিনি ৭০ এর দশকে মাওইস্ট কমিউনিস্ট সেন্টার-MCC এবং পরে পিডব্লিউজি- PWG’তে যোগ দেন। পরে এই দুই দল মিলে ২০০৪ সালে সিপিআই মাওবাদী গঠিত হলে তিনি এর রাজ্য সম্পাদক নির্বাচিত হন ।

ছবি The Telegraph পত্রিকার সৌজন্যে