ভারতঃ দক্ষিণ ছত্তিসগড়ে রেডক্রসের সাবেক প্রধান কর্মকর্তাকে পুলিশের হুমকি

Flag_of_red_cross_pictures

দক্ষিন ছত্তিসগড়ের আদিবাসীদের বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে লেখালেখির কারণে আগে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা নেতৃত্বে থাকা, [International Committee of The Red Cross [ICRC] ] ছত্তিসগড়ে রেডক্রসের সাবেক প্রধান কর্মকর্তা, ফ্রিল্যান্স লেখক মালিনী সুব্রামানিয়ামকে স্থানীয় পুলিশ হুমকি দিয়েছে। দি হিন্দু পত্রিকার সুত্রে জানা যাচ্ছে, রবিবার রাতে পুলিশ তার জগদলপুরস্থ বাসভবনে গিয়ে জানতে চায়- কেন তিনি বনে যান এবং আদিবাসীদের ইস্যু নিয়ে লেখালেখি করছেন? এ সময় মিসেস সুব্রামানিয়াম ঐ কর্মকর্তাদের অফিসের নিয়মিত সময়সূচিতে দেখা করতে বলেন। রেডক্রসের সাবেক এই প্রধান কর্মকর্তা তার মেয়েকে নিয়ে দক্ষিন ছত্তিসগড়ের প্রধান শহর জগদলপুরেই বাস করছেন। এর আগে দক্ষিন ছত্তিসগড়ে পুলিশ কর্তৃক সহায়তা পাওয়া একটি স্থানীয় সংগঠন ‘সামাজিক একতা মঞ্চ’ তাকে ঐ অঞ্চলের মানবাধিকার লঙ্ঘনের বিষয় নিয়ে লেখালেখি থেকে বিরত থাকতে বলেছিল।  মিসেস সুব্রামানিয়াম ঘনিষ্ঠ সূত্রে দি হিন্দুকে বলেন, ২০ সদস্যের ‘সামাজিক একতা মঞ্চ’ এর একটি দল তার কাছে গিয়ে জানতে চায়- কেন তিনি পুলিশের বিরুদ্ধে লিখছেন এবং মাওবাদীদের বিরুদ্ধে নয় কেন ?

 মিসেস সুব্রামানিয়াম, একটি ডিজিটাল নিউজ পোর্টাল এ দক্ষিণ ছত্তিসগড়ের বস্তার অঞ্চলে সাংবাদিকদের গ্রেফতার, মিথ্যে আত্মসমর্পণ ও আদিবাসীদের দমন করতে ‘ধর্ষণ’কে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করার বিষয় নিয়ে ধারাবাহিক নিবন্ধ লিখেছিলেন। তার এবং অন্যান্য সাংবাদিকদের তদন্ত জাতীয় মানবাধিকার কমিশন কর্তৃক [এনএইচআরসি] অনুসন্ধানে ভুমিকা রেখেছিল। এর আগে তিনি দক্ষিণ ছত্তিসগড়ে ICRC-র প্রধান কর্মকর্তা থাকাকালীন মাওবাদী-অধ্যুষিত বিজাপুর ও সুকমা জেলার গ্রামের ভিতরে ভালো মানের ২টি মেডিকেল ক্লিনিক স্থাপন করেছিলেন।

icrc

অনুবাদ সূত্রঃ http://www.thehindu.com/news/cities/kolkata/former-red-cross-boss-threatened-in-south-chattisgarh/article8092596.ece

Advertisements